দৈনিক নবতান
জনতার সংসদ

প্রেমের ফাঁদে ফেলে আপত্তিকর ছবি তুলে ব্ল্যাকমেইল,

0

পাবনায় এক ব্যক্তিকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে ব্ল্যাকমেইল করে তার কাছ থেকে অর্থ আদায়ের অভিযোগে এক দম্পতিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে পাবনার পুলিশ সুপার আকবর আলী মুনশি সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।  

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, পাবনা শহরের ফজলুল হক রোডের মুক্ত টেইলার্সের মালিক মুন্না হোসেন ও তার স্ত্রী মুক্তা খাতুন।

সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ জানান, যশোর থেকে এসে পাবনায় পাটের ব্যবসা করতেন ভুক্তভোগী ইসমাইল হোসেন।

মাঝে অভিযুক্তদের সঙ্গে পরিচয় হয় তার। পরবর্তীকালে মুক্তা খাতুন সুপরিকল্পিতভাবে ভুক্তভোগী ব্যবসায়ীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন। সেই সুযোগে পরিকল্পিতভাবে ইসমাইলের কাছ থেকে পাঁচ হাজার টাকা ধার নেন তিনি। পরবর্তীকালে ধারের টাকা ফেরত দেওয়ার কথা বলে তাকে গত ২০ মার্চ রাধানগর ময়দানপাড়ায় আসামিদের নিজস্ব বাসায় আসতে বলেন।

 

সেখানে গেলে ভুক্তভোগীকে ডাইনিং রুমে আটক করে মুন্না এবং মুক্তা খাতুনসহ তাদের দুই থেকে তিনজন সহযোগী জোর করে ইসমাইলকে নগ্ন করে ছবি তোলেন। এ সময় তাকে মারধরও করা হয়। একপর্যায়ে আসামিরা ইসমাইলকে প্রাণে মেরে ফেলা ও নগ্ন ছবি ভাইরাল করার ভয়ভীতি দেখিয়ে কয়েক দফায় অর্থ হাতিয়ে নেওয়া হয়। পরে এ ঘটনায় ভুক্তভোগী বৃহস্পতিবার (অভিযোগ দিলে ডিবি পুলিশের একটি দল অভিযান চালিয়ে একই দিনই মুক্তা টেইলার্স থেকে তাদের গ্রেপ্তার করে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.