দৈনিক নবতান
জনতার সংসদ

সম্পর্ক, অবিশ্বাস ও বিশ্বাসঘাতকতার গল্প

0

বিনোদন প্রতিবেদক,

গত সপ্তাহের কথা। হঠাৎই চিত্রনায়িকা নিপুণ আক্তার তাঁর ফেসবুক স্ট্যাটাসে লেখেন, ‘আসলে সম্পর্ক শেষ হয়ে যায় দুজনের ভেতর তৃতীয় কেউ এলেই।’ ভক্তদের প্রশ্ন ছিল, কী হলো এই অভিনেত্রীর? নিপুণের এই স্ট্যাটাসের পরই সেটির স্ক্রিনশট ফেসবুকে পোস্ট করেন আরেক অভিনেতা ইমতিয়াজ বর্ষণ। তিনি লেখেন, ‘দোষটা সব সময় পুরুষের হয় না।

কিছু দায় নিজের কাঁধেও নিতে হয় নিপুণ…এবার যেন অন্য কিছু ভাবার পালা।’ তবে ঘটনা আর বেশি দূর এগোল না। নিপুণ ভক্তদের জানিয়ে দিলেন, এটা তাঁর অভিনীত ওয়েব ফিল্ম ‘অপলাপ’–এর প্রচারের অংশ। ক্রাইম থ্রিলার ঘরানার ওয়েব ফিল্মটি আজ ওটিটি প্ল্যাটফর্ম দীপ্ত প্লেতে মুক্তি পাবে।

‘অপলাপ’ পারিবারিক গল্প নিয়ে থ্রিলার। যে গল্প সম্পর্ক, অবিশ্বাসকে কেন্দ্র করে। পরিচালক মোহাম্মদ আলী জানান, ‘“অপলাপ” মূলত পারিবারিক বন্ধনের গল্প। যে গল্পে সম্পর্ক আছে, বিশ্বাস আছে, বিশ্বাসঘাতকতা আছে; যা হয়ে উঠবে সবার গল্প।’ উদাহরণ দিয়ে তিনি আরও বলেন, ‘সুস্বাদু ফল যেমন একটি পোকা নষ্ট করে দিলে সেটা পুরোটাই কিন্তু নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে, তেমনি সন্দেহ একটি সম্পর্ককে পুরোপুরি নষ্ট করে দিতে পারে। ভালোবাসাকে ঘৃণায় রূপান্তরিত করে ফেলে। এই রূপান্তরপ্রক্রিয়া আমাদের সাবলাইম টার্গেট, যেন দর্শক সন্দেহবাতিকতার ভয়াবহতার ব্যাপারে সচেতন হতে পারে। হারিয়ে ফেলার আগেই নিজেদের অমূল্য ভালোবাসার প্রতি যত্নশীল হতে পারে।’

ওয়েব ফিল্মটিতে দেখা যাবে, স্ত্রী সুমিকে হত্যার অভিযোগে সাইকিয়াট্রিস্ট অর্ক রহমান গ্রেপ্তার হন। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে অকপটে খুনের দায় স্বীকার করেন অর্ক। মামলা চলে আদালতে। কিন্তু অর্কের ব্যক্তিগত সহকারী বর্ষার বিশ্বাস, অর্ক খুনটা করেননি। এর পেছনে অন্য কোনো রহস্য আছে। সাহায্যের আশায় বর্ষা শরণাপন্ন হন অর্কের বাল্যবন্ধু ডিবি কর্মকর্তা এডিসি সাইফ হাসানের। সাইফ মামলার তদন্ত করতে গেলে ঘটনা মোড় নেয় নতুন দিকে। এমন অনেক চমক রয়েছে ‘অপলাপ’-এ। ওয়েব ফিল্মটির চিত্রনাট্য লিখেছেন নাজিম উদ দৌলা।

‘অপলাপ’–এর পোস্টার। দীপ্ত প্লের সৌজন্যে
‘অপলাপ’–এর পোস্টার। দীপ্ত প্লের সৌজন্যে

‘অপলাপ’-এ অর্ক চরিত্রে অভিনয় করেছেন ইমতিয়াজ বর্ষণ। তাঁর স্ত্রীর সুমি চরিত্রে দেখা যাবে নিপুণ আক্তারকে। ডিবি কর্মকর্তার চরিত্র করেছেন জিয়াউল রোশান। এ ছাড়া বর্ষা চরিত্রে দেখা যাবে তরুণ অভিনেত্রী প্রিয়ন্তী উর্বীকে। ওয়েব ফিল্মটির গল্প নিয়ে নিপুণ বলেন, ‘পারিবারিক প্রেক্ষাপটে ভিন্ন ধারার একটি গল্প, যা হয়তো আগে দেখা যায়নি। আমার চরিত্রটি নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়। যেখানে অনেক রহস্য লুকিয়ে থাকে। এই সময়ের দর্শক যে ধরনের গল্প পছন্দ করেন, এমন একটি গল্প এটি।’

‘অপলাপ’-এ ইমতিয়াজ বর্ষণকে দেখা যাবে বাণিজ্যিক সিনেমার দুই পরিচিত মুখ নিপুণ ও রোশানের সঙ্গে। কেমন ছিল অভিনয়ের অভিজ্ঞতা? অভিনেতা বলেন, ‘কাজ অনেকটা নির্ভর করে একটা ভালো টিমের ওপর। আমি ভাবছিলাম, নিপুণ আপা ও রোশানের সঙ্গে প্রথম কাজ, তাঁরা কীভাবে নেবেন! কিন্তু শুটিংয়ের সময় দেখলাম, দুজন অনেক আন্তরিক। আমরা অনেক সময় নিয়ে শুটিং করেছি। দুজনই অনেক মিশুক।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.