দৈনিক নবতান
জনতার সংসদ

ধনবাড়ীতে বসত বাড়ীর জমি বেদখলের চেষ্টা   মিথ্যা মামলা

0

ধনবাড়ী (টাঙ্গাইল) সংবাদদাতাঃ
টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী উপজেলার বলিভদ্র ইউনিয়নের বাগুয়া পানকাতা গ্রামের মৃত আঃ- খালেক এর ৫ ছেলে ও ৩ মেয়ে রেখে মৃত্যু বরণ করিলে উক্ত সম্পত্তির মালিক হন পাচ ছেলে ও ৩ মেয়ে । এক সময় পারিবারিক ভাবে বসে সকলে মিলে সকল জমি পারিবারিক ভাবে বন্টন করে চাষাবাদ সহ নিজ নিজ জমিতে দখল করে আসছিল। এমন অবস্থায় বন্টনকৃত জমির মধ্যে র্দীঘ ৩৫ বছর ধরে দুই ভাই সামাউন ও আ: মালেক পিতার সম্পত্তি মধ্য বসতবাড়ী করে আসচ্ছে। অপরদিকে অন্য ভাই বোন মিলে নিজ নিজ অংশ ভোগদখল করা সহ কেহ কেহ অন্যর নিকট তাদের অংশ বিক্রয় করেছে। এমন অবস্থায় ৫ পাচ ভাইরের মধ্য ছোট ভাই তার সকল সম্পত্তি অন্য অন্য দাগে বিক্রয় শেষ করে পূণরায় বড় দুই মো: সামাউন, ও আ: মালেক এর বাড়ী ভিটার জমির মধ্য জোরর্পূবক দেখল করার চেষ্টা করে। ছোট ভাই রফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে দুই ভাইসহ চার জনের এর বিরুদ্ধে টাংগাইল বিজ্ঞ অতি: জেলা ম্যাজি: (শিক্ষা) আদালতে মামলা করেন। মামলা নং ১০১/২০২৩ইং। ঘটনাটি নিয়ে স্থানীয় লোকজন জানান, বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় ভাবে বেশ কয়েক বার শালিশী বৈঠক হলেই মামলার বাদী মো: রফিকুল ইসলাম শালিশ না মেনে শুধু মামলা করার হুমকী দিয়ে যান।
স্থানীয় ইউপি মেম্বার এস.এম ফারুক আহম্মেদ,ও ওর্য়াড আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মো: ওয়াদুদ হোসেন দুদু জানান, মামালার বিবাদী সামাউন , আ: মালেক,শাহিনা ,লাইলী সকলেই গ্রামের সহজ সরল মানুষ। তারা নিজ নিজ জমিতে দখল করা সহ বসত বাড়ী করে আসছে। এমন অবস্থায় মামলার বাদী মো: রফিকুল ইসলাম তার ভাগের অংশ সকল জমি বিক্রয় করা শেয়। এথন অন্য কোন ওপায় না পেয়ে বিবাদীদের বসত ভিটা ও পুকুর বেদখলের চেষ্ঠা করে যাচ্ছে।
এ ব্যাপারে মামলার বাদী রফিকুল ইসলাম জানান, আমি জমি পাই তাই আদালতে মামলার করেছি । আমার ভাইরা আমার জমির সঠিক হিসাব বুঝিয়ে দিচ্ছে না।

Leave A Reply

Your email address will not be published.